ঢাকা   ২১শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ । ৭ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

প্রচন্ড দাবদাহে ট্রাফিক পুলিশকে স্বস্তি দিতে ডিএমপি কমিশনারের অনন্য উদ্যোগ

প্রতিবেদকের নাম
  • প্রকাশিত : শুক্রবার, এপ্রিল ১৯, ২০২৪
  • 185 শেয়ার

বিজনেস ফাইল প্রতিবেদক
বৈশাখের চলমান তীব্র গরমের মধ্যেও ঢাকা নগরীর যানজট নিরসনে ও মানুষের যাতায়াত নির্বিঘ্ন করতে নিরলসভাবে কাজ করছেন ট্রাফিক বিভাগের সদস্যরা। খোলা আকাশের নিচে দায়িত্ব পালন করছেন ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) ট্রাফিক বিভাগ।
এই বৈশাখের খরতাপে রাস্তায় দীর্ঘক্ষণ রোদে দাঁড়িয়ে থাকা ট্রাফিক সদস্যরা হিটস্ট্রোকসহ পানি শূন্যতা, মাথাব্যথা ও শারীরিক দুর্বলতায় ভোগেন। তীব্র গরমে দায়িত্বরত সব ট্রাফিক পুলিশ সদস্যদের স্বস্তি দিতে এক অনন্য উদ্যোগ নিয়েছেন ডিএমপি কমিশনার হাবিবুর রহমান।
কমিশনারের নির্দেশনায় ডিএমপির আটটি ট্রাফিক বিভাগের সব পুলিশ সদস্যদের মধ্যে বিশুদ্ধ খাবার পানি ও খাবার স্যালাইন সরবরাহ করা হচ্ছে।


বৃহস্পতিবার (১৮ এপ্রিল) ট্রাফিক বিভাগের দায়িত্বরত সব সদস্যদের মধ্যে এসব সামগ্রী বিতরণ করা হয়। এই তীব্র তাপদাহ যতদিন থাকবে ততদিন চলবে এই কার্যক্রম।
ট্রাফিক মতিঝিল বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার (অতিরিক্ত ডিআইজি) মোহাম্মদ মইনুল হাসান পিপিএম জানান, গ্রীষ্মের তীব্র দাপদাহে জনজীবন যখন বিপর্যস্ত ঠিক তখনি ট্রাফিক বিভাগের প্রত্যেকটি সদস্য বৈরী আবহাওয়া উপেক্ষা করে অক্লান্ত পরিশ্রমে সেবা দিয়ে যাচ্ছেন নগরবাসীকে। ট্রাফিক পুলিশের ত্যাগের প্রতি সম্মান জানিয়ে পেশাদারিত্ব ও মনোবল অটুট রাখতে পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) স্যারের নির্দেশনায় ও ডিএমপি কমিশনার স্যারের তত্ত্বাবধানে ট্রাফিক মতিঝিল বিভাগ কর্তৃক চলমান দাবদাহ মোকাবিলায় কয়েকটি পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে। এর মধ্যে এক. ট্রাফিক বিভাগের প্রত্যেক পালার ফোর্স/অফিসারের নিকট প্রত্যহ ৫০০মি.লি. সুপেয় মাম পানির বোতল সরবরাহ করা হচ্ছে। দুই. সুপেয় পানির পাশাপাশি বৈচিত্র্য আনয়নের জন্য ভিন্ন ভিন্ন দিন ভিন্ন ভিন্ন আইটেম যেমনঃ খাবার স্যালাইন, ফলের জুস, লেবুর শরবত প্রভৃতি সরবরাহ করা হচ্ছে। তিন. প্রত্যেকটি ট্রাফিক সদস্যের নিকট ছাতা সরবরাহ করে তার কার্যকর ব্যবহার নিশ্চিতে কঠোর মনিটরিং করা হচ্ছে। চার. প্রতিটি বক্সে হাত-মুখ ধোয়ার ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে এবং পাঁচ. তাপপ্রবাহ মোকাবিলায় প্রত্যেক ফোর্সকে করণীয়/বর্জনীয় সম্পর্কে ব্রিফিং প্রদান করা হয়েছে।


ডিসি মইনুল হাসান আরো জানান, এই অসহনীয় গরমে রাস্তায় ডিউটি করা সত্যিই কষ্টকর। কমিশনার স্যার এই উপলব্ধি থেকে ট্রাফিকের সব পুলিশ সদস্যদের জন্য বিশুদ্ধ পানি ও খাবার স্যালাইনের ব্যবস্থা করেছেন। এজন্য তার প্রতি আমরা কৃতজ্ঞ। তার এই উদ্যোগ এই তীব্র গরমের মধ্যেও দায়িত্ব পালনে আরও উদ্বুদ্ধ করবে। এর ফলে একদিকে ফোর্সের মনোবল যেমন চাঙ্গা হয়েছে তেমনি দাপদাহের মধ্যে ও মতিঝিল বিভাগের থেকে নগরবাসী পাচ্ছেন সর্বোত্তম সেবা।

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ
© স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২০