ঢাকা   ১৯শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ । ৪ঠা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কুষ্টিয়ায় সাংবাদিকের উপর সন্ত্রাসী হামলার প্রতিবাদে ছত্রিশ ঘন্টার আল্টিমেটাম

প্রতিবেদকের নাম
  • প্রকাশিত : বৃহস্পতিবার, জুন ২০, ২০২৪
  • 39 শেয়ার

রাশিদা খাতুন, বিশেষ প্রতিনিধি, খুলনা ব্যুরো

স্কুলের ব্যবস্থাপনা কমিটির মিটিং শেষে হরিপুর বাজার থেকে ফেরার পথে এশিয়ান টেলিভিশনের কুষ্টিয়ার স্টাফ রিপোর্টার ও স্থানীয় দৈনিক সত্যখবর পত্রিকার সম্পাদক হাসিবুর রহমান রিজু সন্ত্রাসী হামলার শিকার হন।
তিনি কুষ্টিয়া হাটশ হরিপুর ইউনিয়নের শালদা গ্রামের মৃত আমজাদ মালিথার ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায় – গতকাল বুধবার বিকেলে সদর উপজেলার হাটশ হরিপুর ইউনিয়নের হরিপুর বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।
মাদকের বিরুদ্ধে নিউজ করায় অথবা পূর্ব শত্রুতার জের ধরে এ ঘটনা ঘটতে পারে পারিবারিক তথ্যমতে জানা যায়।

প্রত্যক্ষদর্শী ও পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ের ব্যবস্থাপনা কমিটির নির্বাচনে হাসিবুর সভাপতি পদে প্রার্থী ছিলেন। গতকাল বিকেলে ওই নির্বাচনের মিটিং শেষ করে হরিপুর বাজার থেকে মোটরসাইকেলে করে তিনি শহরের দিকে ফিরছিলেন,রিজুর ভাষ্যমতে -স্থানীয় যুবদল নেতা শিপন, মুরাদ ও রাজনের নেতৃত্বে কয়েকজন দেশি অস্ত্র নিয়ে মোটরসাইকেল থামিয়ে হাসিবুরের ওপর হামলা চালান। এ সময় তাঁর শরীরের বিভিন্ন স্থানে কুপিয়ে হামলাকারীরা পালিয়ে যান।

রক্তাক্ত অবস্থায় ঘটনাস্থলে প্রায় আধা ঘণ্টা ধরে পড়ে ছিলেন হাসিবুর। হামলাকারীরা চলে যাওয়ার পর স্থানীয়রা তাঁকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখান থেকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা ট্রমা সেন্টারে ভর্তি করা হয় পরবর্তী তে ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়।

মাদকের বিরুদ্ধে সংবাদ প্রকাশ এবং পূর্ববিরোধের জেরে এই হামলার ঘটনা ঘটতে পারে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করছেন পরিবারের লোকজন।

কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালের আবাসিক চিকিৎসা কর্মকর্তা (আরএমও) তাপস কুমার সরকার জানিয়েছেন ‘হামলায় রিজুর দুই পা ভেঙে গেছে। বাঁ হাতের কবজি ভেঙে যাওয়াসহ একটি গুরুত্বপূর্ণ শিরা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। দুই হাতের আঙুলে, বুকে ও মাথায় গুরুতর জখমের চিহ্ন রয়েছে।’
জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক কামাল আহমেদ বলেন, ‘শিপন সদর থানা যুবদলের যুগ্ম-আহ্বায়ক। এই হামলার সঙ্গে রাজনৈতিক কোনো উদ্দেশ্য নেই। তাঁদের মধ্যে ব্যক্তিগত সমস্যা থাকতে পারে।
এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে সাংবাদিকের উপর হামলার প্রতিবাদে- নিন্দা জানিয়ে অবিলম্বে জড়িতদের গ্রেপ্তার করে আইনের আওতায় আনার দাবীতে বুধবার রাত ৮টার দিকে বিক্ষোভ মিছিল ও কুষ্টিয়া মডেল থানায় যৌথভাবে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন কুষ্টিয়া প্রেসক্লাব ও কুষ্টিয়ার টেলিভিশন জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের নেতারা ৩৬ ঘন্টার আল্টিমেটাম দেন ।

অবস্থান কর্মসূচিতে অংশ নেন, কুষ্টিয়া প্রেসক্লাবের সভাপতি আল মামুন সাগর, সাধারণ সম্পাদক আবু মনি জুবায়েদ রিপন, যুগ্ম-সম্পাদক দেবাশীষ দত্ত, কুষ্টিয়া টেলিভিশন জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি আনিসুজ্জামান ডাবলুসহ
বিভিন্ন সংগঠনের নেতারা।

পরে থানা চত্বরে এসে, কুষ্টিয়ার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (ক্রাইম অ্যান্ড অপস ও মিডিয়া) পলাশ কান্তি নাথ হাসিবুরের ওপর হামলায় জড়িতদের আটকের আশ্বাস দিলে অবস্থান কর্মসূচি প্রত্যাহার করেন সাংবাদিক নেতারা।
জানা যায়,হাসিবুর রহমান রিজু হরিপুর স্কুলের ব্যবস্থাপনা কমিটির মিটিং শেষে হরিপুর বাজার থেকে শহরের দিকে ফেরার পথে তিনি এ হামলার শিকার হন।
গতরাতে বাবর আলি (৫০) নামে একজন আরও একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়।
ঢাকা পঙ্গু হাসপাতালের স্থানান্তর করার পরে তার মাথায় ছয়টি সেলাই এবং হাতের অপারেশন জরুরী বলে পারিবারিক সূত্রে জানা যায়।

হাসিবুরের স্ত্রী টপি বিশ্বাস জানান‘হামলার সঙ্গে জড়িত কেউ যেন ছাড় না পায়, সেই দাবি জানাচ্ছি।

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ
© স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২০